Text size A A A
Color C C C C
পাতা

কী সেবা কীভাবে পাবেন

     পিসির টাকা জমার নিয়মাবলী   ঃ

 

১। এখানে পিসির টাকা জমা নেয়া হয়।

২। পিসির টাকা জমা দেওয়ার জন্য কোন আবেদনের প্রয়োজন হয়না।

৩। পিসির টাকা গ্রহনের নির্ধারিত স্থানে টাকা জমা করম্নন। অন্য কারো কাছে টাকা জমা  দিবেন না।

৪। পিসির টাকা জমাদানের ব্যাপারে কোন বাড়তি টাকার প্রয়োজন হয়না যদি কেহ পিসির টাকা জমা দেয়ার ব্যাপারে অহেতুক সময় ক্ষেপন বা অন্য কোন অর্থ দাবী করে তবে নিমণলিখিত ফোন নম্বরে জানাতে পারেন   অথবা অনুসন্ধানে রক্ষিত বাক্সে অভিযোগ জমা করতে পারেন।

৫। প্রতিদিনই নির্ধারিত সময়ের মধ্যে পিসিতে টাকা জমা দিতে পারবেন।

৬। তবে আপনি ইচ্ছা করলে ডাক যোগে মানি অর্ডারের মাধ্যমে পিসির টাকা জমা করতে পারেন।

৭। পিসিতে জমাকৃত টাকা দ্বারা বন্দীগণ কারাভ্যমত্মরের ক্যান্টিন থেকে নিত্য প্রয়োজনীয় দ্রব্যাদি ও খাদ্যদ্রব্য সূলভ মূল্যে ক্রয় করতে পারেন।

 

                                  জামিন সংক্রামত্ম নিয়মাবলীঃ

 

১। জামিনে মুক্তিযোগ্য বন্দীদের তালিকা নোটিশ বোর্ডে টাঙ্গানো আছে।

২। জামিন নামা কারাগারে পৌছানোর ব্যাপারে নিশ্চিত হওয়া সত্বেও নোটিশ বোর্ডে টাঙ্গানো জামিন তালিকায় আপনার বন্দীর নাম খঁজে দেখুন।

৩। যেসব বন্দীর জামিন নামায় ভুল আছে তাদের তালিকাও নোটিশ বোর্ডে টাঙ্গানো আছে। তারা আজ মyুক্ত পাবেনা। তাদের আগামীকাল মুক্তি পাবার সম্ভাবনা আছে। তাই অহেতুক অপেÿা না করে আগামীকাল আসুন।

৪। বন্দী মুক্তির জন্য কোন অর্থের প্রয়োজন হয় না। যদি কেহ অর্থ দাবী করে  বা অর্থের বিনিময়ে জামিন 

    ত্বরাম্বিত  করে দেবে বলে আশ্বাস দেয় তবে তাৎÿনিকভাবে বিষয়টি জেল সুপার/জেলার এর ফোন নম্বরে জানাতে পারেন  অথবা অনুসন্ধানে রÿÿত বাক্সে লিপিব্ধ করতে পারেন।

 

         ওকালতনামা স্বাÿরের নিয়মাবলীঃ

 

১। ওকালতনামা নির্দিষ্ট বাক্সে জমা দিন।

২। বন্দীর পূর্ণ ঠিকানা এবং মামলা বৃত্তামত্ম সঠিকভাবে লিখে ওকালতনামা বাক্সে ফেলুন।

৩। প্রতি ০১ (এক) ঘন্টা অন্তর অন্তর ওকালতনামা বাক্স খুলে বন্দীদের স্বাক্ষরান্তে আইনজীবি/আত্মীয় স্বজনের নিকট হসত্মামত্মর করা হয়। নির্দিষ্ট সময়ের মধ্যে ওকালতনামা ফেরত না পেলে অনুসন্ধানে বা রিজার্ভ গার্ডে কর্তব্যরত প্রধান কারারক্ষির নিকট অথবা নীচে উলেস্নখিত ফোন নম্বরে জানাতে পারেন অথবা অনুসন্ধানে রক্ষিত  বাক্সে লিপিব্ধ  করতে পারেন।

৪। ওকালতনামা স্বাÿরের জন্য কোন প্রকার টাকা পয়সা লেনদেন করবেন না। কেহ ওকালতনামা স্বাক্ষরের জন্য  আপনার কাছে টাকা পয়সা দাবী করলে রিজার্ভ গার্ডে কর্তব্যরত প্রধান কারারক্ষিকে অথবা নীচে উলেস্নখিত ফোন নম্বরে জানাতে পারেন অথবা অনুসন্ধানে রক্ষিত বাক্সে লিপিব্ধ করতে পারেন।

 

 

       বন্দীদের নিকট মালামাল সরবরাহের নিয়মাবলীঃ

 

১। বন্দীদের শুকনা খাবার এবং অন্যান্য মালামাল সরবরাহের জন্য কারাগারের নিজস্ব ব্যবস্থাপনায় সাক্ষাৎ রম্নমের পাশে ক্যান্টিন রয়েছে।

২। বাহিরের কোন খাবার বন্দীদের সরবরাহ নিষিদ্ধ।

৩। বন্দীদের নিকট সরবরাহের নিমিত্তে মালামাল তালিকায় লিপিবদ্ধ করে কর্তব্যরত কারারক্ষির নিকট জমা দিন।

৪। আপনার তালিকার মালামাল যত্নের সাথে আপনার বন্দীর নিকট পৌছানোর ব্যবস্থা করা হবে।

৫। মালামাল বন্দীর নিকট পৌছাতে কোন অর্থের প্রয়াজন হয় না। যদি কেহ মালামাল সরবরাহের ব্যাপারে কোন অর্থ দাবী করলে রিজার্ভ গার্ডে কর্তব্যরত প্রধান কারারক্ষিকে অথবা নীচে উলেস্নখিত ফোন নম্বরে 

     জানাতেপারেন অথবা অনুসন্ধানে রক্ষিত বাক্সে লিপিব্ধ করতে পারেন।

৬। মালামাল এর ভিতর কোন প্রকার অবৈধ দ্রব্য সরবরাহ করার চেষ্টা করবেন না।মালামাল যাচাই করে বন্দীর নিকট হসত্মামত্মর করা হয়ে থাকে।জমাদান কালে যদি অবৈধ মালামালের অসিত্মত্ব সনাক্ত করা যায় তবে  সরবরাহকারীর বিরম্নদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে। কারাভ্যমত্মরে প্রবেশের পর মালামাল এর মধ্যে অবৈধ দ্রব্যাদি পাওয়া গেলে কারা বিধি মোতাবেক বন্দীকে শাসিত্ম প্রদান করা হবে।

৭। অবৈধ মালামাল প্রবেশ রোধে আপনার সহযোগিতা কামনা করা হচ্ছে।

 

                      বিশ্রামাগারেরর নিয়ামাবলী  ঃ

১। বিশ্রামাগারে বসার ব্যবস্থা আছে।

২। বিশ্রামাগারে পানীয় জলের সুব্যবস্থা আছে।

৩। অফিসে কোন প্রয়োজনীয় সংবাদ পৌছাতে হলে অনুসন্ধানের সাথে যোগাযোগ করম্নন।

৪। বিশ্রামাগারে অবস্থানকালে কোন প্রকার অসুবিধা হলে কর্তব্যরত প্রধান কারারক্ষিকে অবহিত করম্নন।